পর্যটন সংবাদ

বালু ভাস্কর্য পরিদর্শন করলেন পুলিশ সুপার

কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকতের

এ এম মিজানুর রহমান বুলেট, কলাপাড়া : পর্যটন কেন্দ্র কুয়াকাটা সৈকতে বালিয়াড়িতে নির্মাণাধীন বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশের ইতিহাসের ভাস্কর্যটি পরিদর্শন করেছেন পটুয়াখালী জেলা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ শহীদুল্লাহ পিপিএম।

সোমবার দুপুর ২টায় পুলিশ সুপার ভাস্কর্যটি নির্মাণ কাজ তদারকি সময় উপস্থিত সাংবাদিকদের কাছে ভাস্কর্যের ইতিবৃত্তীয় উপস্থাপন করেছেন। তিনি বলেন,বঙ্গবন্ধুর জন্মদিন ও জাতীয় শিশু দিবস পালন উপলক্ষে ১৭ মার্চ এ ভাস্কর্যটি অনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করা হবে। এছাড়াও বঙ্গবন্ধু ও স্বাধীনতার পটভূমি এবং দেশত্ববোধক গান দিয়ে সাজানো হবে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।এছাড়া ভাস্কর্যটি আগামী ২৬ মার্চ পর্যন্ত পর্যটকসহ স্থানীয়দের জন্য উন্মুক্ত রাখা হবে।

এসময় অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাহফুজুর রহমান,ট্যুরিস্ট পুলিশ কুয়াকাটা জোনের ইনচার্জ সিনিয়র পুলিশ সুপার সোহরাব হোসন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (কলাপাড়া সার্কেল) আহম্মেদ আলী, কলাপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা খন্দকার মোস্তাফিজুর রহমান,মহিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ মনিরুজ্জামানসহ জেলা ও থানার পুলিশের কর্মকর্তরা উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, পটুয়াখালী জেলা পুলিশের উদ্দ্যোগে নির্মিত এ বালু ভাস্কর্যটি বঙ্গবন্ধুর জন্মদিন ও জাতীয় শিশু দিবস এবং জন্মশতবর্ষ উদযাপনে কুয়াকাটা সৈকতে নির্মাণ করা হয়েছে। সৈকতে জিরো পয়েন্টের কোলঘেষে পূর্বপাশে প্রায় ৪০ ফুট দৈর্ঘ্য ও ৮ ফুট প্রশস্ত এ ভাস্কর্যে রয়েছে ১৯৫২’র ভাষা আন্দোলন, ১৯৬৬ সালের ৬ দফা, ৬৯ এর গণআন্দোলন ও ১৯৭১ সালের মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস।

খুলনা ও রাজশাহী বিশ^বিদ্যালয়ের চারুকলা বিভাগের ৬ শিক্ষার্থী গত ৯ মার্চ মঙ্গলবার থেকে দিন-রাত পরিশ্রম করে ইতিমধ্যে বালু দিয়ে ফুটিয়ে তুলেছেন বালুর ভাস্কর্যটি।

আরও পড়ুন

মন্তব্য করুন

Back to top button