বরিশাল জেলার সংবাদ

ইউপি সদস্য প্রার্থীর উপর হামলার প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন

মো. আলহাস, হিজলা : বরিশালের হিজলা উপজেলার হরিনাথপুর ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ইউপি সদস্য প্রার্থী আজিজুল হক মুন্নার উপর প্রতিপক্ষ প্রার্থীর হামলার প্রতিবাদে ও সত্য উদঘাটনের উদেশ্যে সংবাদ সম্মেলন করে ইউপি সদস্য প্রার্থী আজিজুল হক মুন্না।

৩ এপ্রিল বেলা ১২ টার দিকে হিজলা প্রেসক্লাবের হলরুমে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে আজিজুল হক মুন্না বলেন, নির্বাচন কমিশনের অধীনে প্রথম ধাপে ২০২১ ইং সনের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে হিজলা উপজেলাধীন ১ নং হরিনাথপুর ইউনিয়ন পরিষদে আমি টিউবওয়েল মার্কায় মেম্বার পদপ্রার্থী।

গত পহেলা এপ্রিল আমি নির্বাচনী প্রচারনা শেষে হরিনাথপুর বাজারে কর্মীদের সাথে কথা বলার সময় আমার প্রতিদ্বন্দ¦ী প্রার্থী মাহাবুব সিকদার ও তার দলবল রামদা, রড, হকস্টিক, সহ দেশিও অস্ত্র নিয়ে আমার উপর এলোপাথারী হামলা চালায়। স¤্রাট মোল্লা রড দিয়ে এবং রাফি হকিস্টিক দিয়ে আমার উপর হামলা চালায়।

এই হামলায় আমার মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন জায়গায় আঘাতে আমি অচেতন হয়ে পড়ি, অচেতন অবস্থায় স্থানীয়রা আমাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। হামলার সময় আমার কাছে থাকা ৫ হাজার টাকা ও একটি হাওয়াই মোবাইল সেট নিয়ে যায়। পরবর্তীতে আমি হিজলা থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করি।

আমি মেডিকেলে চিকিৎসাধিন অবস্থায় জানতে পারি আমার প্রতিপক্ষ মাহাবুব সিকদারের বাবা একজন বীরমুক্তিযোদ্ধা তিনি গত ২ এপ্রিল হরিনাথপুর ইউনিয়ন পরিষদের নিচে এক ভিডিও বার্তায় জানায়, তিনি নৌকা প্রার্থীর প্রচারনা করতে গেলে আমি তাকে লাথি মেরেছি গালিগালাছ করেছি, কিন্তু এরকম কোন ঘটনা ঘটেনি। সেসময়ে আমি মেডিকেলে ভর্তি ছিলাম।

আব্দুল খালেক সিকদার একজন বীরমুক্তিযোদ্ধা তাকে সহ আমি সকল মুক্তিযোদ্ধাদের শ্রদ্ধা করি। আমার বিরুদ্ধে মিথ্যাচারের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই। এ বিষয়ে আমি উপজেলা নির্বাহী অফিসার, মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার হিজলা উপজেলা এবং হরিনাথপুর ইউনিয়ন মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডারের বরাবরে সত্য উদঘাটনের জন্য লিখিত আবেদন করেছি।

আরও পড়ুন

মন্তব্য করুন

Back to top button