বরিশাল জেলার সংবাদ

হিজলায় ট্রলারসহ ২৭ ব্যারেল গলদা চিংড়ির রেনু জব্দ

আলহাস, হিজলা : বরিশালের হিজলা উপজেলার ধুলখোলা ইউনিয়নের ধুলখোলা চর থেকে ৩ জুন বৃহস্পতিবার রাত আনুমানিক বারোটার সময় একটি ট্রলারসহ ২৭ ব্যারেল গলদা চিংড়ির রেণু আটক করেছে কোস্টগার্ড।

এ ব্যাপারে কোস্টগার্ডের সিসি মাহবুব আলম পিওর জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মেঘনা নদীর ধুলখোলা এলাকা থেকে একটি ট্রলারসহ রেনু গুলো জব্দ করা হয়েছে। যার আনুমানিক মূল্য ১৫ লক্ষ টাকা।

৪ জুন শুক্রবার বেলা ১১ টার সময় রেনুগুলো বাউশিয়ার মেঘনা নদীতে হিজলা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নির্দেশে অবমুক্ত করা হয়। এ সময় উপজেলা সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা আব্দুল হালিম, জনপ্রতিনিধি ও সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিল।

জানা যায়, হিজলা উপজেলার মেঘনা নদী দিয়ে দীর্ঘদিন পর্যন্ত ভোলার রেনু ব্যবসায়ী মিজান পালোয়ান, কামাল চৌধুরী, মেহেন্দিগঞ্জের জামাল সরদার, কাদির জমাদ্দার, আবু বক্কর (বক্কা) গাজী, হিজলার আলাউদ্দিন সরকার, ইউসুফ সরদার, আমির সদ্দার, এবং জসিম সরদারসহ একাধিক অবৈধ ব্যবসায়ীরা স্থানীয় হিজলা মেহেন্দিগঞ্জের প্রশাসনকে ম্যানেজ করে বাগদা চিংড়ি গলদা চিংড়ির রেনুর ব্যবসা করে আসছে।

হিজলা উপজেলা পরিষদের আইন শৃঙ্খলা ও মাসিক সমন্বয় সভায় একাধিকবার এই অবৈধ ব্যবসার কথা জানালে ও প্রশাসন ছিল নীরব ভূমিকায়। কখনো আটক করা হয়নি এ ধরনের ব্যবসায়ীদের কে অথবা বাগদা ও গলদা চিংড়ির চালান।

স্থানীয়রা নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন,  কোস্টগার্ড যে রেনু আটক করেছে তা ছিল খুবই সামান্য এখনো হিজলার মেঘনা দিয়ে প্রতিদিন কোটি কোটি টাকার মূল্য গলদা ও বাগদা চিংড়ির ব্যবসা করে আসছে স্থানীয় প্রভাবশালীরা। তাদেরকে ধরতে সম্পূর্ণ ব্যর্থ হয়েছে স্থানীয় প্রশাসনের নিযুক্ত থাকা থানা পুলিশ নৌ পুলিশ কোস্টগার্ড ও মৎস্য অধিদপ্তর বলেও তাদের অভিমত।

আরও পড়ুন

মন্তব্য করুন

Back to top button